ধনের মানুষ নয়, মনের মানুষ বড় বা ধনের মানুষ অপেক্ষা মনের মানুষই বড়

/

ধনের মানুষ নয়, মনের মানুষ বড় বা ধনের মানুষ অপেক্ষা মনের মানুষই বড় ভাবসম্প্রসারণ

মূলভাব: প্রচলিত ধারণা অনুসারে যার ধনসম্পদ বেশি, সে বড়াে বলে বিবেচিত। অর্থসম্পদ মানুষকে সমৃদ্ধ জীবনযাপন করতে সাহায্য করে, নিজেকে বড়াে বলে ভাবার সুযােগ তৈরি করে দেয়। কিন্তু অর্থসম্পদ বেশি হলেই যে কেউ বড়াে বলে বিবেচিত হবে, তা নয়। যার মন বড়াে অর্থাৎ যিনি উদার, পরােপকারী, সৎ, তিনিই যথার্থ বড় মাপের মানুষ ।

ভাবসম্প্রসারণ: পার্থিব জীবনে জীবনধারণের জন্যে সম্পদের প্রয়ােজন সকলেরই। বিশেষ করে সাংসারিক জীবনে অর্থের প্রয়ােজন অনেক বেশি। কিন্তু অর্থ দিয়ে মন ক্রয় করা যায় না। স্নেহ, ভালােবাসা, মমতা, সেবা, পরােপকার ইত্যাদি টাকাপয়সার অনেক ওপরে। বড় মনের মানুষ অনেক মহৎ। ধনের মানুষ আর মনের মানুষের মধ্যে বিস্তর তফাত রয়েছে। ধনের মানুষকে অনেকে নিজের স্বার্থসিদ্ধির জন্য তােষামােদ করে। ধনের মানুষ নিজেকে নিজে বড়াে বলে জাহির করে। এ ধরনের মানুষ মরে যাওয়ার সাথে সাথে পৃথিবী থেকে তাদের নাম মুছে যায়। পক্ষান্তরে, যে ব্যক্তি জ্ঞানী, পরােপকারী, চরিত্রবান ও মহৎ হৃদয়ের অধিকারী তাঁর ধনসম্পদ না থাকলেও মানুষ তাকে শ্রদ্ধা করে, ভালােবাসে। এ ধরনের মানুষ কোনাে কিছু প্রত্যাশা করেন না। তাই মরে গিয়েও এঁরা অমর হয়ে থাকেন। পৃথিবীর অনেক মহৎ ব্যক্তি আজও স্মরণীয় ও বরণীয় হয়ে আছেন তাঁদের মহৎ গুণের জন্যে। এঁদের অনেকেই অঢেল বিত্ত-বৈভবের অধিকারী ছিলেন না। কিন্তু ছিলেন উদার, মহৎ ও পরােপকারী মানুষ। এ গুণই তাদের বড়াে মানুষে পরিণত করেছে। ধনবান ব্যক্তিকে মানুষ শ্রদ্ধা করে স্বার্থের জন্য, কিন্তু হৃদয়বান মানুষকে শ্রদ্ধা করে ভালােবেসে। তাই হৃদয়বান মানুষ চিরদিন। মানুষের মনে অমর হয়ে থাকেন।

Leave a Comment